'শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে একদিন করে ক্লাস নেয়ার পরিকল্পনা'

 নিজস্ব প্রতিবেদক
আপডেট: ২০২১-০৯-০৪ , ০৬:৪৫ পিএম

'শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে একদিন করে ক্লাস নেয়ার পরিকল্পনা' ছবি: ইন্টারনেট

শিক্ষা উপমন্ত্রী ব্যারিস্টার মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল বলেছেন, করোনা সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে রাখতে আপাতত শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোতে একদিন করে ক্লাস নেওয়ার পরিকল্পনা করছে সরকার। শনিবার (৪ সেপ্টেম্বর) দুপুরে চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের ওয়ান স্টপ ইমার্জেন্সি কেয়ারের উদ্বোধন শেষে সাংবাদিকদের মন্ত্রী এ কথা বলেন।

এসময় তিনি আরও বলেন, করোনার প্রথম থেকে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলো অনলাইন, অফলাইনে তাদের শিক্ষা কার্যক্রম চালিয়ে নিলেও তা যথেষ্ঠ ছিলো না। শিক্ষার্থীদের স্বশরীরে ক্লাসে ফিরিয়ে আনতে সরকার শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলো খুলে দিতে যে তারিখ ঘোষণা করেছে সে অনুযায়ী ক্লাস শুরু হবে।

শিক্ষা উপমন্ত্রী আরো জানান, আপাতত একদিন করে ক্লাস নেওয়ার পরিকল্পনা থাকলেও আলোচনার মাধ্যমে সময় আরো বাড়ানো যায় কিনা তা নিয়ে আলোচনা করা হবে। তবে সংক্ষিপ্ত সিলেবাসে যথাসময়ে এসএসসি ও এইচএসসি পরীক্ষা নিয়ে নেওয়া এখন প্রধান লক্ষ্য বলে জানান তিনি।

এর আগে, শুক্রবার (৩ সেপ্টেম্বর) শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি জানান, আগামী ১২ সেপ্টেম্বর থেকে প্রাথমিক, মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা প্রতিষ্ঠান আমরা খুলে দিতে পারবো। শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলা ও সশরীরে পাঠদানের ক্ষেত্রে তিনটি নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। শ্রেণিকক্ষে বেঞ্চ সাজাতে হবে ৩ ফুট দূরত্ব বজায় রেখে। ৫ ফুটের কম দৈর্ঘ্যের বেঞ্চে একজন শিক্ষার্থী এবং ৫ ফুটের বেশি দৈর্ঘ্যের বেঞ্চে দুজন শিক্ষার্থী স্বাস্থ্যবিধি মেনে ক্লাস করতে পারবে। শ্রেণিকক্ষে সবার জন্য মাস্ক পরা বাধ্যতামূলক। আগের ঘোষণা অনুযায়ী স্বাস্থ্যবিধি মেনে এ বছরের নভেম্বরে এসএসসি ও ডিসেম্বরে এইচএসসি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে।

উল্লেখ্য, করোনা সংক্রমণের কারণে গত বছরের ১৭ মার্চ থেকে দেশের সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ ঘোষণা করে সরকার। সর্বশেষ আগামী ১১ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত পর্যন্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে এই সাধারণ ছুটি বিদ্যমান ছিলো। ইতিমধ্যে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খোলার ব্যাপারে দেশের বিভিন্ন স্থানে শিক্ষক ও শিক্ষার্থীদের পক্ষ থেকে দাবি উঠে। বিশেষ করে উচ্চশিক্ষা প্রতিষ্ঠান খোলার ব্যাপারে দাবি সবচেয়ে বেশি জোরালো।